আদমদীঘিতে সরকারি চাল উদ্ধার মামলার আসামীরা ১৯ দিনেও গ্রেফতার হয়নি

0
311

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি :

বগুড়ার আদমদীঘিতে পাচারের উদ্দেশ্যে মজুত রাখা সরকারি চাল উদ্ধার বিশেষ ক্ষমতা আইন মামলার ১৯ দিন অতিবাহিত হলেও  কোন আসামি এখনও গ্রেফতার হয়নি  ।

স্থানীয়দের অভিযোগ , সরকারি চাল কেনা সংঘবন্ধ চক্রটি প্রভাবশালি মহলের ছত্রছায়ায় এলাকায় মাঝে মধ্যেই ঘুরে বেড়াচ্ছে। এছাড়া চাল উদ্ধার ঘটনাটি অন্যখাতে প্রবাহিত করার অপচেষ্টা চালাচ্ছেন বলেও নামপ্রকাশ করার না শর্তে একাধিক ব্যক্তি এই মন্তব্য করেন।

আদমদীঘির কুন্দগ্রাম ইউনিয়নের সরকারি খাদ্যবান্ধব কর্মসুচী ও ত্রাণ সামগ্রীর বিতরণ করা একুশ বস্তায় প্রায় এক মেট্রিক টন সরকারি চাল ক্রয় সংঘবদ্ধ একটি চক্র পাচারের উদ্দেশ্যে মজুত রাখে।

গত ২১ এপ্রিল বিকেলে চকপাড়া থেকে পুলিশ ওই একুশ বস্তা চাল উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় রাতেই থানার উপ-পরিদর্শক রবিউল করিম বাদি হয়ে সরকারি চাল ক্রয় সিন্ডিকেটের সদস্য উপজেলার কুন্দগ্রামের রেজাউল করিম রাজা (৪০), সাজ্জাদ হোসেন (৩২), ইদ্রিছ আলী (৫০), সামছুল আলম (২৮) এর নাম উল্লেখসহ আরও অজ্ঞাত কয়েকজনকে আসামী করে ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইন ২৫(১) ধারায় একটি মামলা দায়ের করেন।

এদিকে মামলা দায়েরের পর ১৯ দিন অতিবাহিত হলেও এখনও কোন আসামি গ্রেফতার হয়নি। তবে এলাকাবাসির অভিযোগ, প্রভাবশালীদের পৃষ্ঠপোষকতার করণেই আসামীরা গ্রেফতার হচ্ছে না।

মামলার তদন্তকারি উপ-পরিদর্শক এখলাছুর রহমান, প্রভাবশালীদের পৃষ্ঠপোষকতার বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, চলমান করোনা পরিস্থিতির কারণে ব্যস্ত থাকতে হয় আগের চেয়ে বেশি। তারপরও কয়েক দিন অভিযান চালিয়েও গ্রেফতার করা যাচ্ছেনা।

অফিসার ইনচার্জ জালাল উদ্দীন জানান, উদ্ধারকৃত চাল সরকারি কিনা তা যাচাই করার জন্য চালের নমুনা খাদ্য বিভাগে প্রেরন করা হয়েছে। এছাড়া চাল চোরের সাথে জড়িতরা যতই প্রভাবশালী হোক পুলিশ তার কাজ করে যাবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here