দৃষ্টি২৪ডেস্ক: সময়ের সেরা ব্যাটসম্যানের তালিকায় সবার উপরে বিরাট কোহলি। ধারাবাহিকতা আর ব্যাটিং সামর্থ্যে কোহলিকে বলা হয় সর্বকালের সেরা ব্যাটসম্যানদের একজনও।

আর যদি বলা হয় ওয়ানডে ক্রিকেটে রান তাড়ায় সর্বকালের সেরা? সেখানে সন্দেহাতীতভাবেই আসবে ভারতীয় অধিনায়কের নাম। তামিম ইকবালের নিয়মিত ফেইসবুক শোতে সোমবার রাতের অতিথি ছিলেন বিরাট কোহলি। ভারতীয় অধিনায়ক সেখানেই শুনিয়েছেন রান তাড়ায় এতটা দক্ষ হয়ে ওঠার গল্প। আড্ডায় অবিশ্বাস্য রান তাড়ার রহস্য জানতে চান তামিম। জবাবে কোহলি মজার ছলে বলেছেন, মুশফিকুর রহীমরা (উইকেটরক্ষকরা) উইকেটের পেছন থেকে স্লেজিং করে তার মনোযোগ বাড়িয়ে দেন! বিস্তারিত বলেছেন, রান তাড়ার বিষয়টি ছোট থেকেই ধারণ করে আসছেন তিনি। আত্মবিশ্বাসও এতে বড় ভূমিকা রাখে।

কোহলি বলেন, ‘মেন্টাল প্রসেস যথেষ্ট সিম্পল থাকে। কখনও কখনও তো মুশফিকরাও এক্ষেত্রে সহায়তা করে, স্টাম্পের পেছন থেকে কিছু শোনায়, তাতে আমি আরও অনুপ্রাণিত হয়ে উঠি। দেখুন আমি তরুণদেরকেও এটা বলি যে আপনার আত্মবিশ্বাস থাকা জরুরী।

আপনাকে মনে করতে হবে যে এটা আমি করতে পারব। ছোটবেলায় টিভিতে খেলা দেখতাম। যখন দেখতাম ভারত কোন ম্যাচ তাড়া করে জিততে পারত না তখন মনে করতাম যে আমি থাকলে ম্যাচ জেতাতে পারতাম। ওটা এক স্বপ্নের মতো। মাঠে যখন এমন পরিস্থিতি আসে তখন আসলে মনে হয় যে আমি জেতাতে পারব।’

‘রান তাড়া এমন একটা বিষয় যেটাতে কী করতে হবে তা একেবারে পরিস্কার। কত রান করতে হবে এবং আপনাকে কী কী করতে হবে সব পরিস্কার। আমার কাছে এর চেয়ে পরিস্কার পরিস্থিতি আর কিছু নেই। আমি রান তাড়ায় কখনো চাপ অনুভব করি না। আমি এটাকে সুযোগ মনে করি। আমার মনে হয়, এটা এমন এক পরিস্থিতি যেখানে আপনি জিতিয়ে অপরাজিত থেকে আসতে পারবেন। ৩৭০-৩৮০ রান তাড়া করতে হলেও আমার মনে হয় না যে পারব না।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here