সাগর সরদার

দেশে চলমান করোনা আতঙ্কের মাঝেও যৌতুকের মাত্র ৪০ হাজার টাকা না পেয়ে নববধূকে নির্যাতন।

অবশেষে বৃহস্পতিবার বিকেলে স্বামীর বাড়ি থেকে ওই নববধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে বগুড়া সদর থানা পুলিশ। লাশ উদ্ধারের পর অভিযুক্ত স্বামী, শ্বশুর, শ্বাশুড়ি, ননদ, দেবর সবাই বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে গেছে। নিহত ওই নববধূর নাম শরিফা আক্তার (১৯)।

ঘটনাটি ঘটেছে বগুড়ার সদর উপজেলার নুনগোলা ইউনিয়নের হাজরাদিঘী উত্তরপাড়া গ্রামে। স্থানীয়রা জানায় তিন মাস আগে কাহালু উপজেলার পাইকড় ইউনিয়নের খিয়ার ভুগইল কালিতলা গ্রামের আবু সামাদের কন্যা শরিফাকে বিয়ে করে নিয়ে আসে হাজরাদিঘী উত্তরপাড়ার শাহ আলমের ছেলে রাকিব হাসান।

নিহত শরিফার মা অভিযোগ করে বলেন, যৌতুকের দাবীকৃত ৪০ হাজার টাকা না পেয়ে বাড়ির সবাই মিলে আমার মেয়েকে পরিকল্পিত ভাবে হত্যা করে লাশ ঝুলিয়ে রেখে পালিয়ে গেছে।

বগুড়া সদর থানা পুলিশ গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে। এ ব্যাপারে সদর থানায় নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে হত্যা মামলার প্রস্তুতি চলছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here