বাদীকে অভিযোগ প্রত্যাহার করতে, তদন্তকারী পুলিশ কর্মকর্তার হুমকি

0
165
শাজাহানপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি:

প্রতিপক্ষের হামলায় আহত এক নারী বিচার চেয়ে থানায় অভিযোগ দিলেও উল্টো অভিযোগ প্রত্যাহারের জন্য হুমকি-ধামকি দিচ্ছেন পুলিশের তদন্ত কর্মকর্তা।

বগুড়ার শাজাহানপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই)ওবায়দুল আল মামুনের বিরুদ্ধে এমন তুলেছেন উপজেলার দক্ষিনপাড়ার শাহেরা বেগম নামের এক গৃহবধু।

থানায় অভিযোগে বাদী শাহেরা বেগম (৫৫) জানান, তার স্বামী তজমল হোসেন একজন ভ্যানচালক। দুই ছেলেও রিক্রা-ভ্যান চালায়। কোন রকমে তাদের সংসার চলে। তাদের বাড়ির পাশে রাস্তা দিয়ে লোকজন যাতায়াত করে। কিন্তু ওই রাস্তার উপর প্রতিবেশী মৃত আরজুল্লাহর ছেলে ফজলুর রহমান বারীর (৪২) একটি গাছ থাকায় চলাচলে বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। চলাচলের সুবিধার্থে গাছটি কেটে নিতে বহুবার বলা হলেও তিনি গাছ সরিয়ে নেননি।

বিষয়টি স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ জানেন। গত ২৩ জুলাই দুপুরে পুনরায় গাছটি কেটে নিতে বললে ফজলুর রহমান বারী ও তার ছেলে আব্দুল মমিন বাবু (২৫) ক্ষিপ্ত হয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করেন। একপর্যায়ে উপুর্যপুরি মারপিট করেন। মারপিটে তার এক চোখ সহ শরিরের বিভিন্ন স্থানে গুরুতর আহত হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসা নেন।

এবিষয়ে থানায় মামলা করতে চাইলে স্থানীয় ব্যক্তিবর্গ আপোষ মিমাংসার কথা বলে পরবর্তিতে অপারগতা প্রকাশ করেন। শেষে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।

বাদীর ছেলে শাহীন আলম জানান, অভিযোগ দায়েরের পর দীর্ঘদিন পেরিয়ে গেলেও পুলিশ কোন ব্যবস্থা নেয়নি।

এমতাবস্থায় গত সোমবার অভিযোগ তদন্তকারী কর্মকর্তা থানার এসআই ওবায়দুল আল মামুন বাড়িতে গিয়ে গিয়ে অভিযোগ তুলে নিতে বলেন। মারপিটে তার মায়ের এক চোখ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। শরিরের বিভিন্ন স্থানে গুরুতর আহত হয়েছে। পুলিশ এর বিচার না করে অভিযোগ তুলে নিতে হুমকি দিচ্ছে।

অভিযোগ তদন্তকারী কর্মকর্তা  শাজাহানপুর থানার উপপরিদর্শক(এসআই) ওবায়দুল আল মামুন জানান, বাদী ও বিবাদীকে থানায় ডাকা হয়েছে। কাউকে অভিযোগ তুলে নিতে বলা হয়নি।

থানার ওসি আজিম উদ্দীন জানান, বিষয়টি তার জানা নেই। এমনটি হয়ে থাকলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here