শাজাহানপুরে প্রতিবন্ধি নারীকে মারপিট-শ্লীলতাহানী

0
201

প্রতিবন্ধি নারীকে মারপিট শ্লীলতাহানী

শাজাহানপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি:
বগুড়ার শাজাহানপুরে প্রতিবন্ধি এক নারীকে (৩০) মারপিট ও শ্লীলতাহানী করেছে দুর্বৃত্তরা।

এঘটনায় প্রতিবন্ধি ওই নারী বাদি হয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন। প্রতিবন্ধি ওই নারী উপজেলার খোট্টাপাড়া ইউনিয়নের ঘাষিড়া দোগলাপাড়ার বাসিন্দা।

প্রতিবন্ধি ওই নারী জানান, তার সাত বোন। কোন ভাই নাই। অনেক দিন আগে বাবা-মা মারা গেছেন। ছোট বেলায় অসুখে তার শরীরের বাম পাশের হাত ও পা প্যারালাইজড হয়ে যায়। যার কারণে এখন পর্যন্ত বিয়ে হয়নি। আগে নন্দিগ্রামে এক নারীর বাড়িতে থেকে বাড়ি বাড়ি আরবী পড়াতেন। শারীরিক অসুস্থ্যতার কারণে চলাফেরার সুবিধার জন্য নন্দিগ্রামের ওই আশ্রিতা নারী ও তার এক ছেলেকে নিয়ে বর্তমানে বাবার বাড়িতে বসবাস করেন। কয়েক বছর আগে তার ফুপুর কাছ থেকে হাফ শতক জমি ক্রয় করেন। এই জমি নিয়ে তার তিন চাচা রুস্তম আলী, আব্দুল লতিফ ও আব্দুল মজিদ ও তাদের সন্তাদের সাথে দ্বন্দ চলে আসছে। এনিয়ে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের নিয়ে বিচর সালীশও হয়েছে। প্রসাশনের বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ দেয়া হয়েছে। এমতাবস্থায় শনিবার সকালে তার চাচারা বাড়িতে এসে বলে বাড়ি থেকে বের হয়ে যা। এই বাড়ির জমি আমাদের। এনিয়ে তাদের সাথে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে চাচা আব্দূল লতিফ ও চাচাতো ভাই সুজন (২২) এলোপাথারী মারপিট করে এবং পড়নের কাপড় টেনে হিচড়ে শ্লীলতাহানী ঘটায়। এঘটনায় থানায় অভিযোগ করতে এলে বাড়িতে থাকা আশ্রিতা ওই নারীকে চাচাতো ভাই সুজন মারপিট করতে আসে। একপর্যায়ে আশ্রিতা নারীর কাপড় টেনে শ্লীলতাহানীর চেষ্টা করলে ভয়ে বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যায়। এই সুযোগে সুজন ঘরে বাক্সে থাকা ৫০ হাজার টাকা নিয়ে যায়।

চাচা আব্দুল লতিফ জানান, তার বড়ভাই রুস্তমের জমির উপর এক গাছের ডাল কাটা নিয়ে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। কাউকে মারপিট করা হয়নি এবং টাকাও নেয়া হয়নি। মিথ্যা অভিযোগ করা হয়েছে।

অভিযোগ তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই ছাম্মাাক জানান, অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শণ করা হয়েছে। তদন্ত চলছে। তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here