সিংড়ায় স্কুল ছাত্রীকে জোড়পূর্বক ধর্ষণ, থানায় মামলা

0
518
আশরাফুল ইসলাম সুমন, স্টাফ রিপোর্টার
নাটোরে সিংড়ায় পঞ্চম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনার একদিন পর গত শনিবার থানায় মামলা করা হয়েছে।
স্কুলছাত্রীর পরিবারের অভিযোগ, উপজেলার সুকাশ ইউনিয়নের হাঁসপুকুরিয়া গ্রামের মৃত আমজাদ হোসেনের ছেলে আকরাম (২৮) কয়েক মাস ধরে মেয়েটিকে বিভিন্ন সময় কু-প্রস্তাব দিচ্ছিল। গত শুক্রবার বিকেলে আকরামের বাড়ির কাছে ওই ছাত্রীকে একা পেয়ে এবং বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে আকরাম তাঁর ঘরে সিগারেটের প্যাকেট আনতে বলে ওই স্কুল ছাত্রী ঘরে প্রবেশ করার সাথে সাথে পিছন থেকে ঝাপটে ধরে তাকে জোড়পূর্বক ধর্ষণ করে।
এরপর ঘটনাটি কাউকে না বলার জন্য হুমকিও দেয়। জানালে তাকে প্রাণে মেরে ফেলবে বলে জানান আকরাম। মেয়েটি বাড়ি ফিরেই সবার কাছে ঘটনা খুলে বললে তার বাবা বিষয়টি প্রথমে আকরামের পরিবার, পরে ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি ও স্হনীয় ইউপি সদস্যসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিদের জানান।
আকরামের পরিবার থানায় মামলা না করার পরিবর্তে কিছু টাকা নিয়ে আপসের প্রস্তাব দেয়। আর স্থানীয় ইউপি সদস্যসহ অন্যরা মীমাংসার কথা বলেন। এতে তাঁদের আইনগত পদক্ষেপ নিতে দেরি হয়েছে বলে জানান তাঁরা।
পরে শনিবার সকালে ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে সিংড়া থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা করেন।
স্থানীয় ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি আলহাজ্ব মো. আজহারুল ইসলাম বলেন, শুনেছি স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয়েছে। আমি এই ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি।
মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই আব্দুর রহিম জানান, আমি সরেজমিনে গিয়ে তদন্ত করেছি এবং ওই স্কুল ছাত্রীকে পরীক্ষা জন্য সিংড়া উপজেলা আধুনিক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে পরীক্ষার পর বিষয়টি জানা যাবে।
এই ব্যাপারে সিংড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নুর-এ-আলম সিদ্দিকী জানান, আকরামের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছে ভুক্তভোগী বাবা রকিব হোসেন। অভিযুক্ত আকরাম পলাতক।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here