৮লাখ টাকা ক্ষতির পর সান্তাহারে স্বাস্থ্য বিধি মেনে খুলল শখের পল্লী

0
306

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি :

করোনা ভাইরাসের ঝুঁকি এড়াতে দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ থাকায় আর্থিকভাবে ক্ষতির মুখে পড়েছে বগুড়ার আদমদীঘির সান্তাহারে ব্যক্তিগত ভাবে নির্মিত বিনোদন কেন্দ্র ‘শখের পল্লী’।

আয় না থাকায় গত ৩মাসে সাড়ে ৭লাখ টাকা ভূর্তুকি গুনতে হয়েছে কর্তৃপক্ষের। করোনার ঝুঁকি এড়াতে কর্তৃপক্ষের ব্যক্তিগত তহবিল থেকে কর্মহীন হয়ে পড়া ৩০জন কর্মচারীদের দেয়া হয়েছে আর্থিক সহায়তা। তা দিয়েই তারা কোনো ভাবে জীবনযাপন করছেন। ফলে কর্তৃপক্ষের পাশাপাশি কর্মচারীরাও পরিবার পরিজন নিয়ে অনেকটা দুশ্চিন্তায় রয়েছেন।

এমন পরিস্থিতিতে দীর্ঘ আড়াই মাস ধরে বন্ধ থাকার পর স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা হলো বিনোদন কেন্দ্রটি।

মঙ্গলবার দুপুরে শখের পল্লীর মূল ফটকে সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়- সরকারি ভাবে দেয়া নির্দেশনা মেনে বিনোদন প্রেমিরা বিনোদন কেন্দ্রে প্রবেশ করছেন।
জানাগেছে, করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে সরকারের দেয়া নির্দেশনা মেনে গত ১৮মার্চ থেকে বন্ধ রাখা হয়েছিল সান্তাহারের বিনোদন কেন্দ্র শখের পল্লী। আড়াইমাস পর সরকারি নির্দেশনা মতে দর্শনার্থীদের হাত ধুয়ে, সামজীক দূরত্ব মেনে, শরীরের তাপমাত্রা মেপে ও বাধ্যতামূলক ভাবে মাস্ক ব্যাবহার নিশ্চিত করে বিনোদন কেন্দ্রে প্রবেশ করানো হচ্ছে।

দর্শনার্থীদের পদচারনায় আবার মূখরিত হতে শুরু করেছে বিনোদন কেন্দ্রটি। বিভিন্ন জীব-জন্তু আর দীর্ঘদিন পড়ে থাকা বিনোদনের নানা রাইডস্গুলো আবারো সচল হতে যাচ্ছে। চিন্তামুক্ত হচ্ছে প্রায় ত্রিশ জন কর্মচারীর পরিবার।

শখের পল্লী’র সত্বাধিকারী ইঞ্জিনিয়ার নজরুল ইসলাম বলেন, শখের বসে নির্মিত এ পার্ক থেকে বাণিজ্যিক ভাবে মুনাফা অর্জন করা আমার লক্ষ্য নয়। এলাকার বেকারত্ব ঘোচাতে ও বিনোদন প্রেমিদের চাহিদা মেটানোয় আমার মূল লক্ষ্য। সরকারি ভাবে ঘোষণা পাওয়ার পর সকল নিয়ম মেনে পার্কটি পুণরায় খোলা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here